পোস্টমর্টেম রিপোর্টে তথ্য

কাছ থেকে ৪টি গুলি করা হয়েছিল সিনহাকে

স্টাফ রিপোর্টার

প্রথম পাতা ১০ আগস্ট ২০২০, সোমবার | সর্বশেষ আপডেট: ১:৩১

কক্সবাজারের টেকনাফে অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদকে খুব কাছ থেকে গুলি করা হয়েছে। তাকে মোট চারটি গুলি করা হয়েছিল। এর মধ্যে তিনটি গুলি তার শরীরে লাগে। গুলিগুলো তার শরীরের একদিকে প্রবেশ করে অন্যদিক দিয়ে বেরিয়ে গেছে। এ কারণে তার শরীরে গুলির ছয়টি আঘাত পাওয়া গেছে। এরমধ্যে একটি গুলি বাম হাতের বাহুতে লেগে ছিদ্র হয়ে বের হয়ে যায়। পরের গুলিটি বাম কাঁধের নিচ দিয়ে ঢুকে পিঠ দিয়ে বেরিয়ে যায়। এছাড়া আরেকটি গুলি বুকের বাম পাশে একই জায়গা দিয়ে ঢুকে পিঠে পাশাপাশি দুটি ক্ষত তৈরি করে বেরিয়ে গেছে।
এই গুলি বুকের পাজরের হাড় ভেঙে হৃৎপিণ্ড ও ফুসফুস ছিন্ন-বিচ্ছিন্ন করে দিয়েছে। খুব কাছ থেকে এই গুলি করা হয়েছে বলে ধারণা করছেন ময়নাতদন্তকারী চিকিৎসকরা। কক্সবাজার সিভিল সার্জনের মাধ্যমে তদন্ত সংস্থা র‌্যাবের কাছে পাঠানো সিনহা হত্যার ময়নাতদন্ত রিপোর্ট থেকে এসব তথ্য জানা গেছে। ৭ই জুলাই কক্সবাজার সদর হাসপাতালের আরএমও শাহীন আবদুর রহমান ময়নাতদন্ত শেষে সিভিল সার্জনের মাধ্যমে পুলিশ সুপারের কাছে পাঠান। পুলিশ সুপার সেটি তদন্ত সংস্থা র‌্যাবের কাছে পাঠিয়েছেন। রিপোর্টে আরো বলা হয়েছে, সিনহার গলা ও হাতসহ শরীরের বিভিন্ন অংশে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। তবে সেগুলো গুলির আঘাত নয়। সিনহার মৃত্যু হয়েছে অতিরিক্ত রক্তক্ষরণে।

আপনার মতামত দিন

প্রথম পাতা অন্যান্য খবর

এনডিটিভি’র রিপোর্ট

ত্রিপুরা-মিজোরাম সীমান্ত থেকে বিপুল অস্ত্র আটক

৩০ সেপ্টেম্বর ২০২০

এমসি কলেজে গণধর্ষণ

তদন্তে কমিটি গঠন করলেন হাইকোর্ট

৩০ সেপ্টেম্বর ২০২০

এমসি কলেজ ছাত্রাবাসে গৃহবধূ ধর্ষণের ঘটনার দায় নিরূপণে তিন সদস্যের কমিটি গঠন করে অনুসন্ধানের নির্দেশ ...

আসামিদের দম্ভোক্তি

৩০ সেপ্টেম্বর ২০২০

পাপের সদর দপ্তর ২০৫

২৯ সেপ্টেম্বর ২০২০

শেখ হাসিনা-মোদি বৈঠক ডিসেম্বরে

আজ জেসিসি বৈঠক, উঠবে তিস্তা-সীমান্ত হত্যা ইস্যু

২৯ সেপ্টেম্বর ২০২০



প্রথম পাতা সর্বাধিক পঠিত



নির্যাতিতার জবানবন্দি

হাতে-পায়ে ধরলেও মন গলেনি ধর্ষকদের

অপকর্মের কেন্দ্র ২০৫ নম্বর কক্ষ

কলঙ্কিত এমসি ক্যাম্পাস ধর্ষকদের ‘উল্লাস’

গ্রেপ্তার হয়নি অভিযুক্ত ছাত্রলীগ কর্মীরা

ক্ষোভে উত্তাল সিলেট সড়ক অবরোধ

বিশিষ্টজনদের প্রতিক্রিয়া

অপরাধীকে অপরাধী হিসেবে সাজা দিতে হবে

করোনা পরীক্ষায় ধীরগতি

নতুন বিড়ম্বনায় সৌদি প্রবাসীরা