দেশে ফিরতে গিয়ে ধর্ষণের শিকার বাংলাদেশী তরুণী

ভারত

কলকাতা প্রতিনিধি | ২ অক্টোবর ২০১৯, বুধবার | সর্বশেষ আপডেট: ১:৩৮
অবৈধভাবে দেশে ফিরতে গিয়ে সীমান্ত এলাকায় দালালদের ধর্ষণের শিকার হয়েছেন এক বাংলাদেশি তরুণী। স্থানীয় সূত্রে খবর পেয়ে পুলিশ মঙ্গলবার তাকে উদ্ধার করেছে। বনগাঁ সীমান্তের পেট্রাপোল থানার পুলিশ তঁকে আটক করে তদন্তও শুরু করেছে। তবে বুধবার সকাল পর্যন্ত ওই দুই দালালকে পুলিশ গ্রেপ্তার করতে পারেনি। মাসখানেক আগে বাংলাদেশ থেকে কাজের খোঁজে অবৈধভাবে বনগাঁয় এসেছিলেন ওই তরুণী। সেখান থেকে তিনি ভালো কাজের প্রতিশ্রুতি পেয়ে চলে গিয়েছিলেন গুজরাটের সুরাটে। তবে সেখানে তাকে দেহব্যবসার কাজে লাগানোর আঁচ পেয়ে দেশে ফিরে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন।  কোনও বৈধ কাগজপত্র না থাকায় দেশে ফিরে যাবার উদ্দেশে ফের বনগাঁয় এসে সীমান্ত পারাপারের দালালদের সঙ্গে যোগাযোগ করেছিলেন তিনি।  বনগাঁর নরহরিপুরের ২ দালাল তাকে সীমান্ত পার করে দেবে বলে প্রতিশ্রুতি দিয়ে তাদের ডেরায় নিয়ে উঠেছিল। সেখানেই তরুণীটিকে ওই দুই দালাল ধর্ষণ করে বলে অভিযোগ।
স্থানীয় এক পঞ্চায়েত সদস্য ঘটনাটি পুলিশকে জানালে পুলিশ গিয়ে তাকে উদ্ধার করে। ঘটনার তদন্ত শুরু হয়েছে। অভিযুক্ত দুই দালালের খোঁজে তল্লাশিও চলছে। তবে  অবৈধভাবে ভারতে আসার জন্য পুলিশ তরুণীটিকে আটক করেছে।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

খালেদার মুক্তির দাবিতে বিএনপির মশাল মিছিল

সারাদেশে স্বেচ্ছাসেবক দলের বিক্ষোভ সোমবার

অপহৃত পাক তরুণীকে নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে কুরুচিপূর্ন মন্তব্যের ঝড়

রাজধানীতে দুই বাসে আগুন

রাস্তা কেটে পুকুর, ভোগান্তিতে ১০ গ্রামের মানুষ

ফেন্সিংয়ে একটি ও ভারোত্তোলনে দুটি স্বর্ণ জিতলো বাংলাদেশ

রোহিঙ্গাদের অধিকার বিষয়ক অফিস বন্ধের নির্দেশ বাংলাদেশের

রুম্পা হত্যা: উত্তাল স্টামফোর্ড

৩ দিন ঘিরে রাখার পর জানা গেলো বোম নয়

ইংরেজির পাশাপাশি বাংলায়ও রায় লেখার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

‘জাবি ভিসির দুর্নীতির তথ্য-উপাত্ত যাবে ইউজিসির কাছে’

ভারতীয় মুসলিমদের বিষয়ে বাংলাদেশও উদ্বিগ্ন: পাকিস্তানি প্রেসিডেন্ট

আগামীকাল সারাদেশে বিএনপির বিক্ষোভ

আবারো স্বর্ণ জিতলেন মাবিয়া

আমাদের ন্যায় বিচার পাওয়ার সুযোগ ছিলো না: প্রধানমন্ত্রী

ইভটিজিংয়ের প্রতিবাদ করায় ছুুরিকাঘাতে যুবক নিহত